বামদের হরতালেও নিজের গদি হারানোর ভয়ে ভীত সরকার

নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্যের উর্ধ্বমুখীতার প্রতিবাদে আজকের হরতাল কর্মসূচি নিয়ে মন্ত্রীরা একদিকে যেমন হাসিঠাট্টা করছে। অন্যদিকে তাঁরাই আবার পুলিশ দিয়ে জলকামান ও নির্বিচারে লাঠিপেটা করেছে।

সরকারী দলও বিভিন্ন পয়েন্টে দাঁড়িয়ে হরতাল প্রতিহতের চেষ্টা চালিয়েছে।

একদিকে দ্রব্যমূল্যের আঘাতে জর্জরিত দেশের মানুষগুলো পঙ্গপালের মত টিসিবির গাড়ির পেছনে ঊর্ধ্বশ্বাসে ছুঁটছে। অন্যদিকে উন্নয়নের মহাসড়কের দাবীদার সরকার আগামীকাল জনগণকে জমকালো এক কনসার্ট উপহার দিচ্ছে।

উৎসব আয়োজনের এই মাহেন্দ্রক্ষণে সরকার নিশ্চয়ই বামদের হরতালেও নিজের গদি হারানোর ভয়ে ভীত। নতুবা রাজপথে প্রতিবাদী এই নিরস্ত্র মানুষগুলোকে এভাবে পেটানো হলো কেন?

যে দেশের সরকার তার জনগণের একটি গ্রহণযোগ্য প্রতিবাদকে পর্যন্ত মানতে না পেরে পুলিশ দিয়ে নির্বিচারে পেটায়। অভূক্ত জনগণের প্রতিবাদ কর্মসূচি নিয়ে হাসিঠাট্টা ও রংতামাশা করে। তারা দেশের মানুষের প্রতিনিধিত্বকারী সরকার হিসাবে কতটুকু বিশ্বাসযোগ্য?

ড. তুহিন মালিক

Leave a Reply

Your email address will not be published.